০৭:৪০ অপরাহ্ন, সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

গুজরাতে ৫০০০০ দলিত হিন্দু থেকে বৌদ্ধ ধর্মে ধর্মান্তরিত

ভারতের গুজরাতের  গান্ধীনগরে সমাজ সংস্কারক বি আর আম্বেদকরের ১৩২তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে দলিত ও উপজাতি সম্প্রদায়ের প্রায় ৫০ হাজার মানুষ হিন্দু ধর্ম ত্যাগ করে বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণ করেন।

পোরবন্দরের গ্রেট অশোক বৌদ্ধ বিহারের বৌদ্ধ ভিক্ষু প্রজ্ঞা রত্ন লক্ষ লক্ষ অংশগ্রহণকারীকে ‘দীক্ষা’ প্রদান করেন। রাজকোট ভিত্তিক দলিত সংগঠন স্বয়ংসৈনিক দল (এসএসডি) এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

এই অনুষ্ঠানের আগে একটি বিশাল পদযাত্রা অনুষ্ঠিত হয়, যেখানে হাজার হাজার মানুষ অংশ নেন। এদের বেশিরভাগই দলিত এবং উপজাতি। গান্ধীনগরের সমাবেশে যারা বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণ করেন তারা ২২টি শপথ নিয়েছিলেন যা সংবিধানের প্রধান স্থপতি ৬৬ বছরেরও বেশি সময় আগে বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণের সময় নিয়েছিলেন। এই ২২টি অঙ্গীকার মূলত বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণকারী ব্যক্তিকে হিন্দুধর্ম সম্পর্কিত ধর্মীয় বিশ্বাস গুলি ত্যাগ করতে বলে।

দলিত সংগঠন স্বয়ংসৈনিক দল (এসএসডি), যার কোনও নির্দিষ্ট নেতৃত্ব বা ধর্মগুরু নেই তার মিডিয়া আহ্বায়ক অশ্বিন পারমার বলেন, লক্ষ লক্ষ মানুষ সমাবেশে যোগ দিলেও আমাদের সমাবেশে শত শত মানুষ বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণ করেন।

যদিও তাদের মধ্যে কেউ কেউ ইতিমধ্যে তাদের ধর্মান্তরকে বৈধতা দেওয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট জেলা কালেক্টর অফিসে আবেদন জমা দিয়েছেন, অন্যরা শীঘ্রই একই কাজ করবেন,” বলেছেন দলিত সংগঠন এসএসডির মিডিয়া আহ্বায়ক অশ্বিন পারমার, যার কোনও নির্দিষ্ট নেতৃত্ব বা শ্রেণিবিন্যাস নেই।

অনুষ্ঠানে বেশ কয়েকজন বক্তা দাবি করেন, জাতিভিত্তিক বৈষম্যের কারণে দলিত ও উপজাতিরা হিন্দু ধর্ম ছাড়তে বাধ্য হচ্ছেন।

উল্লেখ্য, আম্বেদকর তাঁর হাজার হাজার অনুসারীদের নিয়ে ১৯৫৬ সালের ১৪ অক্টোবর নাগপুরে বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণ করেন।

 

শেয়ার করুন
আরও সংবাদ দেখুন

বুদ্ধ পূর্ণিমায় কোন ধরনের নিরাপত্তা ঝুঁকি নেই : ডিএমপি কমিশনার

গুজরাতে ৫০০০০ দলিত হিন্দু থেকে বৌদ্ধ ধর্মে ধর্মান্তরিত

আপডেট সময় ০১:৫৯:৪১ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ৩০ এপ্রিল ২০২৩

ভারতের গুজরাতের  গান্ধীনগরে সমাজ সংস্কারক বি আর আম্বেদকরের ১৩২তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে দলিত ও উপজাতি সম্প্রদায়ের প্রায় ৫০ হাজার মানুষ হিন্দু ধর্ম ত্যাগ করে বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণ করেন।

পোরবন্দরের গ্রেট অশোক বৌদ্ধ বিহারের বৌদ্ধ ভিক্ষু প্রজ্ঞা রত্ন লক্ষ লক্ষ অংশগ্রহণকারীকে ‘দীক্ষা’ প্রদান করেন। রাজকোট ভিত্তিক দলিত সংগঠন স্বয়ংসৈনিক দল (এসএসডি) এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

এই অনুষ্ঠানের আগে একটি বিশাল পদযাত্রা অনুষ্ঠিত হয়, যেখানে হাজার হাজার মানুষ অংশ নেন। এদের বেশিরভাগই দলিত এবং উপজাতি। গান্ধীনগরের সমাবেশে যারা বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণ করেন তারা ২২টি শপথ নিয়েছিলেন যা সংবিধানের প্রধান স্থপতি ৬৬ বছরেরও বেশি সময় আগে বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণের সময় নিয়েছিলেন। এই ২২টি অঙ্গীকার মূলত বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণকারী ব্যক্তিকে হিন্দুধর্ম সম্পর্কিত ধর্মীয় বিশ্বাস গুলি ত্যাগ করতে বলে।

দলিত সংগঠন স্বয়ংসৈনিক দল (এসএসডি), যার কোনও নির্দিষ্ট নেতৃত্ব বা ধর্মগুরু নেই তার মিডিয়া আহ্বায়ক অশ্বিন পারমার বলেন, লক্ষ লক্ষ মানুষ সমাবেশে যোগ দিলেও আমাদের সমাবেশে শত শত মানুষ বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণ করেন।

যদিও তাদের মধ্যে কেউ কেউ ইতিমধ্যে তাদের ধর্মান্তরকে বৈধতা দেওয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট জেলা কালেক্টর অফিসে আবেদন জমা দিয়েছেন, অন্যরা শীঘ্রই একই কাজ করবেন,” বলেছেন দলিত সংগঠন এসএসডির মিডিয়া আহ্বায়ক অশ্বিন পারমার, যার কোনও নির্দিষ্ট নেতৃত্ব বা শ্রেণিবিন্যাস নেই।

অনুষ্ঠানে বেশ কয়েকজন বক্তা দাবি করেন, জাতিভিত্তিক বৈষম্যের কারণে দলিত ও উপজাতিরা হিন্দু ধর্ম ছাড়তে বাধ্য হচ্ছেন।

উল্লেখ্য, আম্বেদকর তাঁর হাজার হাজার অনুসারীদের নিয়ে ১৯৫৬ সালের ১৪ অক্টোবর নাগপুরে বৌদ্ধ ধর্ম গ্রহণ করেন।