০৪:০৩ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

উখিয়ায় বৌদ্ধ ভিক্ষু হত্যার প্রতিবাদে রামুতে মানববন্ধন

  • ডেস্ক রিপোর্ট :
  • আপডেট সময় ০৫:১৭:১২ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৮ জুলাই ২০২৩
  • ৭৮৪ বার পড়া হয়েছে

উখিয়া হলদিয়াপালং মরিচ্যা শ্রাবস্তি বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ ধর্মজ্যোতি ভিক্ষু হত্যার প্রতিবাদে  রামু উপজেলায় মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শুক্রবার (৮ জুলাই) সকালে রামু চৌমুহনী স্টেশনে রামু কেন্দ্রীয় বৌদ্ধ যুব পরিষদ, রামু বুড্ডিস্ট স্টুডেন্টস কাউন্সিল, বাংলাদেশ বৌদ্ধ সমিতি যুব, উত্তর মিঠাছড়ি প্রজ্ঞা-সার যুব কল্যাণ পরিষদের ব্যানারে যৌথভাবে এ মানববন্ধন করা হয়।

মানববন্ধনে  মুক্তিযোদ্ধা রণধীর বড়ুয়া, শিক্ষক কিশোর বড়ুয়া, রামু উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শামসুল আলম মণ্ডল,  তরুণ বড়ুয়া, রামু কেন্দ্রীয় কালী মন্দিরের পুরোহিত সজল ব্রাহ্মণ চৌধুরী, রামু সোনালী অতীত ফুটবল ক্লাবের সভাপতি পলক বড়ুয়া আপ্পু, উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা সুজন শর্মা, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক তপন মল্লিক, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নীতিশ বড়ুয়া, উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান মুসরাত জাহান মুন্নী প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধনে বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বী নেতাকর্মী ছাড়াও বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মুসলিম, হিন্দু ধর্মাবলম্বী নারী-পুরুষ অংশে নেন।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, ধর্মজ্যোতি ভিক্ষুর সঙ্গে কারও শত্রুতা ছিল না। দুর্বৃত্তরা পরিকল্পিতভাবে এ ঘটনা ঘটিয়েছে। এ ঘটনায় জড়িতদের দ্রুত আইনের আওতায় আনতে হবে এবং হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। এ সময় বক্তারা প্রতিটি বৌদ্ধ বিহারের নিরাপত্তা নিশ্চিত করারও দাবি জানান।

উল্লেখ্য ,  রোববার গভীর রাতে কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার হলদিয়াপালং ইউনিয়নের মরিচ্যা শ্রাবস্তি বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ ধর্মজ্যোতি ভিক্ষুর ওপর হামলা করে দুর্বৃত্তরা। পরদিন সোমবার সকালে বৌদ্ধ বিহারের একটি কক্ষ থেকে ধর্মজ্যোতিকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। গুরুতর আহত ধর্মজ্যোতি গত বুধবার রাত ৩টার দিকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান।

শেয়ার করুন
আরও সংবাদ দেখুন

উখিয়ায় বৌদ্ধ ভিক্ষু হত্যার প্রতিবাদে রামুতে মানববন্ধন

আপডেট সময় ০৫:১৭:১২ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৮ জুলাই ২০২৩

উখিয়া হলদিয়াপালং মরিচ্যা শ্রাবস্তি বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ ধর্মজ্যোতি ভিক্ষু হত্যার প্রতিবাদে  রামু উপজেলায় মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শুক্রবার (৮ জুলাই) সকালে রামু চৌমুহনী স্টেশনে রামু কেন্দ্রীয় বৌদ্ধ যুব পরিষদ, রামু বুড্ডিস্ট স্টুডেন্টস কাউন্সিল, বাংলাদেশ বৌদ্ধ সমিতি যুব, উত্তর মিঠাছড়ি প্রজ্ঞা-সার যুব কল্যাণ পরিষদের ব্যানারে যৌথভাবে এ মানববন্ধন করা হয়।

মানববন্ধনে  মুক্তিযোদ্ধা রণধীর বড়ুয়া, শিক্ষক কিশোর বড়ুয়া, রামু উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শামসুল আলম মণ্ডল,  তরুণ বড়ুয়া, রামু কেন্দ্রীয় কালী মন্দিরের পুরোহিত সজল ব্রাহ্মণ চৌধুরী, রামু সোনালী অতীত ফুটবল ক্লাবের সভাপতি পলক বড়ুয়া আপ্পু, উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা সুজন শর্মা, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক তপন মল্লিক, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নীতিশ বড়ুয়া, উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান মুসরাত জাহান মুন্নী প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধনে বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বী নেতাকর্মী ছাড়াও বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মুসলিম, হিন্দু ধর্মাবলম্বী নারী-পুরুষ অংশে নেন।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, ধর্মজ্যোতি ভিক্ষুর সঙ্গে কারও শত্রুতা ছিল না। দুর্বৃত্তরা পরিকল্পিতভাবে এ ঘটনা ঘটিয়েছে। এ ঘটনায় জড়িতদের দ্রুত আইনের আওতায় আনতে হবে এবং হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। এ সময় বক্তারা প্রতিটি বৌদ্ধ বিহারের নিরাপত্তা নিশ্চিত করারও দাবি জানান।

উল্লেখ্য ,  রোববার গভীর রাতে কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার হলদিয়াপালং ইউনিয়নের মরিচ্যা শ্রাবস্তি বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ ধর্মজ্যোতি ভিক্ষুর ওপর হামলা করে দুর্বৃত্তরা। পরদিন সোমবার সকালে বৌদ্ধ বিহারের একটি কক্ষ থেকে ধর্মজ্যোতিকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। গুরুতর আহত ধর্মজ্যোতি গত বুধবার রাত ৩টার দিকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান।